কোম্পানীগঞ্জের চৌধুরী বাজারে গণ ডাকাতি

ফেব্রুয়ারি ১৬, ২০১৭ ০১:০২:অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক: নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার মুছাপুর ইউনিয়নের চৌধুরী বাজারে ৭টি দোকানে ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। এসময় ডাকাতদল ওই দোকানগুলো থেকে নগদ টাকা’সহ অন্তত ১৫লাখ টাকার মালামাল লুট করে নিয়ে যায়। ডাকাতের হামলায় মাইন উদ্দিন (৪৫) নামের এক ব্যক্তি আহত হয়েছেন।

১৬ ফেব্রুয়ারি বৃহস্পতিবার ভোর ৪টার দিকে চৌধুরী বাজারে এ ডাকাতির ঘটনা ঘটে। আহত মাইন উদ্দিন ওই এলাকার মোস্তফা মিয়ার ছেলে।
পুলিশ ও ব্যবসায়ীদের জানা গেছে, ভোরে একদল ডাকাত চৌধুরী বাজারে প্রবেশ করে। এসময় তারা ফটিক মোল্লা, বাবুল মাষ্টার, হারুন সওদাগর, সোহেল, ফারুক হোসেন মাঝি ও একটি স্বর্ণ দোকানের তালা ভেঙে ভিতরে প্রবেশ করে নগদ টাকা এবং মূল্যবান মালামাল লুট করে নিয়ে যায়।

পরে বিষয়টি টের পেয়ে স্থানীয় লোকজন ছুঁটে আসলে ডাকাতদল মাইন উদ্দিন নামের একজনকে এলোপাতাড়ি পিটিয়ে জখম করে পালিয়ে যায়। স্থানীয় ব্যক্তি ইমাম হোসাইন পিয়াস জানান, দক্ষিণ মুছাপুরে অনেক দিন ধরে ডাকাতি হচ্ছে। বাজারে ডাকাতির হওয়ায় আমরা এলাকার নিরাপত্বা নিয়ে চিন্তিত। চৌধুরী বাজারে রাতে কোন চৌকিদার নেই বলে ডাকাতির ঘটনা সম্ভব হয়েছে বলে তিনি উল্লেখ করেন।

ক্ষতিগ্রস্থদের বরাত দিয়ে স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান নজরুল ইসলাম চৌধুরী শাহীন জানান, ডাকাতদল ৭টি দোকান থেকে নগদ টাকা’সহ অন্তত ১৫লাখ টাকার মালামাল লুট করে নিয়ে গেছে।

কোম্পানীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সৈয়দ মো. ফজলে রাব্বী জানান, খবর পেয়ে সকালে তিনি ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। ঘটনায় প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

উল্লেখ্য, কোম্পানীগঞ্জের প্র্ত্যান্ত অঞ্চলে দীর্ঘ দিন ধরে ডাকাতির ঘটনা ঘটছে। আওয়ামী লীগ সরকারের আমলে উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যানের বাড়ীতে ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। প্রভাবশালী আওয়ামী লীগ নেতার বাড়ীও ডাকাতি থেকে বাদ যায়নি।

Related Post